30 C
Dhaka
Thursday, July 18, 2024

নতুন গিলাফে জড়ানো হলো পবিত্র কাবা

মক্কায় পবিত্র মসজিদুল হারাম তথা কাবা ঘরের গিলাফ পরিবর্তন করা হয়েছে। কালো কাপড়ের স্বর্ণখচিত গিলাফ মোড়ানো আরবীয় সংস্কৃতির ঐতিহ্য। প্রতিবছর হজের সময় পুরোনো গিলাফ পরিবর্তন করে কাবা ঘরে নতুন গিলাফ পরানো হয়। কিন্তু এবার তা নতুন বছরে করা হয়েছে।

জানা গেছে, বর্তমানে আরবি নতুন বছর ১৪৪৬ হিজরির প্রথম প্রহরে পবিত্র কাবার এ গিলাফ পরিবর্তন করা হয়। হিজরি নববর্ষকে স্মরণীয় করতে গত বছর থেকে এই উদ্যোগ নিয়েছে সৌদি কর্তৃপক্ষ। এর আগে প্রতি বছর হজের সময় আরাফার দিন সকালে কাবার গিলাফ পরিবর্তন করা হতো। তবে গত দুইবছর হিজরি নববর্ষের প্রথম দিন কাবার গিলাফ পাল্টানো হচ্ছে।

আরো পড়ুন  সৌদি পৌঁছেছেন সাড়ে ১৩ হাজার হজযাত্রী

আরবি নতুন বছর উপলক্ষে শনিবার ১ মুহাররম (সন্ধ্যা থেকে দিন গণনা শুরু) সৌদি আরবের স্থানীয় সময় এশার নামাজের পর রাত পৌনে দশটার দিকে পবিত্র ঘরের নতুন গিলাফ পরিধানের আনুষ্ঠানিকতা শুরু হয়।

শনিবার (৬ জুলাই) সৌদি প্রেস এজেন্সির এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

সৌদি প্রেস এজেন্সির প্রতিবেদনে বলা হয়, কাবার গিলাফ পরিবর্তনের কাজ ১৬৯ জন দক্ষ প্রযুক্তিবিদ ও কারিগরের মাধ্যমে সম্পন্ন হয়ে থাকে। পুরনো গিলাফটি সরিয়ে নতুন গিলাফ পড়াতে তিন থেকে চার ঘণ্টা সময় লাগে। এ কাজ শুরু করা হয় কজ হাতিম থেকে। হাতিম হচ্ছে কাবা শরিফের উত্তর পার্শ্বের অর্ধ-বৃত্তাকার দেয়ালঘেরা স্থান।

আরো পড়ুন  ভাই আমারে মাইরেন না, আমি মসজিদের ইমাম

কাবার গিলাফ তৈরি করা হয়, কিং আব্দুল আজিজ কিসওয়াহ কমপ্লেক্সে। এটি প্রস্তুত করতে কাজ করেন ২০০-এর অধিক কর্মচারী। এই কর্মচারীরা গিলাফ তৈরির বিভিন্ন কাজে অংশ নিয়ে থাকেন। গিলাফটি মোট ৫৬টি টুকরায় তৈরি করা হয়। আর এগুলো একেকটি তৈরি করতে সময় লেগেছে ৬০ থেকে ১২০ দিন। কাবার আবরণ প্রস্তুত করতে ব্যবহার করা হয় ১ হাজার কেজি কাঁচা রেশম।

আরো পড়ুন  গাজীপুর কোনাবাড়ী থানা ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ সম্মেলন’২০২৩ সম্পূর্ণ
সর্বশেষ সংবাদ