27 C
Dhaka
Saturday, July 13, 2024

মেয়ের জয়ে উল্লসিত শেখ রেহানা

যুক্তরাজ্যের জাতীয় নির্বাচনে লেবার পার্টি থেকে জয় পেয়েছেন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের কন্যা শেখ রেহানার মেয়ে টিউলিপ সিদ্দিক। ব্রিটেনের হ্যাম্পস্টেড অ্যান্ড হাইগেট আসন থেকে এমপি হিসেবে পুনর্নির্বাচিত হয়েছেন তিনি। মেয়ের এই জয়ে উচ্ছ্বাস প্রকাশ করেছেন শেখ রেহানা।

সময় সংবাদকে শেখ রেহানা বলেন, আমার মেয়ে আবার এমপি নির্বাচিত হলো। মানুষের সেবায় সে নিষ্ঠার সঙ্গে তার দায়িত্ব পালন করবে। শুধু নির্বাচনের সময় নয়, সারা বছরই সে এলাকায় কাজ করে। সবার কাছে দোয়া চাই, সে যেন তার কাজ নিষ্ঠার সঙ্গে করতে পারে।

শুধু নির্বাচিত এলাকায় নয়, যেখানেই প্রয়োজন এবং সব অসহায় মানুষের পাশে সে (টিউলিপ) থাকবে বলেও আশা প্রকাশ করেন শেখ রেহানা।

আরো পড়ুন  কী ছিল কঙ্গনার সেই পোস্টে? যার জন্য তিনি থাপ্পড় খেলেন

এসময়, টিউলিপ সিদ্দিক যেন সব সময় সৎভাবে থাকতে পারেন এবং মানুষের সেবায় নিজেকে নিয়োজিত করতে পারেন; সেজন্য সবার দোয়া চান রেহানা।

সংবাদমাধ্যম বিবিসি জানিয়েছে, এবারের নির্বাচনে ২৩ হাজার ৪৩২ ভোট পেয়েছেন টিউলিপ। তার প্রতিদ্বন্দ্বী কনজারভেটিভ পার্টির প্রার্থী ডন উইলিয়ামস পেয়েছেন ৮ হাজার ৪৬২টি ভোট।

টিউলিপ ছাড়াও ব্রিটেনের নির্বাচনে জয় পেয়েছেন বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত ড. রূপা হক। যুক্তরাজ্যের নির্বাচনে এবারই সর্বোচ্চ সংখ্যক বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত প্রার্থী লড়ছেন। এদের মধ্যে একাধিক প্রার্থীর জয়ের পর মন্ত্রিসভায় স্থান পাওয়ারও সম্ভাবনা রয়েছে।

আরো পড়ুন  মোদীর চেয়ে বেশি ব্যবধানে জিতেছেন ২২৪ প্রার্থী, কার তুলনায় কতটা জনপ্রিয় তিনি?

লেবার পার্টি থেকে গেল মেয়াদের চার এমপি রুশনারা আলী, টিউলিপ সিদ্দিক, ড. রূপা হক ও আফসানা বেগম এবারও লড়েছেন। একই দল থেকে এবার ভোটের লড়াইয়ে আছেন আরও চারজন। এরা হলেন: রুমী চৌধুরী, রুফিয়া আশরাফ, নুরুল হক আলী ও নাজমুল হোসাইন। কনজারভেটিভ দলের মনোনয়ন নিয়ে ভোটের মাঠে আছেন আতিক রহমান ও সৈয়দ সাইদুজ্জামান।

এছাড়া, ওয়ার্কার্স পার্টি অব ব্রিটেন থেকে ছয়জন এবং রিফর্ম পার্টি, লিবারেল ডেমোক্র্যাটস, স্কটিশ ন্যাশনালিস্ট পার্টি ও সোশ্যালিস্ট পার্টি থেকে আছেন একজন করে। গ্রিন পার্টি থেকে তিনজন, আর স্বতন্ত্র হিসেবে ১১ বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত প্রার্থী লড়ছেন ভোটের মাঠে।

আরো পড়ুন  গবেষণা দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের পর বিশ্বে সর্বোচ্চ সংঘাত ঘটেছে ২০২৩ সালে

উল্লেখ্য, যুক্তরাজ্যের সাধারণ নির্বাচনে বড় জয় পেয়েছে লেবার পার্টি। সব আসনের ফল না আসলেও, সংখ্যাগরিষ্ঠতা পাওয়ার জন্য প্রয়োজনীয় ৩২৬ আসনের বাধা পেরিয়ে গেছে দলটি। এর মধ্য দিয়ে পতন হয়েছে ১৪ বছর ধরে ক্ষমতায় থাকা কনজারভেটিভ পার্টির।

বিবিসি জানিয়েছে, যুক্তরাজ্যের পার্লামেন্টে মোট ৬৫০টি আসনের মধ্যে ফল ঘোষণা বাকি আছে আর মাত্র ৪০টির।

দেশটিতে একক সংখ্যাগরিষ্ঠতার জন্য কোনো দলের ৩২৬ আসন প্রয়োজন হলেও, লেবার পার্টি এরইমধ্যে ৩৯৮টি আসনে জয় নিশ্চিত করেছে। বিপরীতে কনজারভেটিভরা পেয়েছে মাত্র ১০৭টি আসন। বাকি আসন জিতেছে অন্যান্য দল।

সর্বশেষ সংবাদ